শনিবার ০২ মার্চ ২০২৪ ১৮ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ভারত তিস্তার বাঁধ খুলে দেওয়ায় বাংলাদেশে ভয়াবহ বন্যার আশঙ্কা
প্রকাশ: শনিবার, ২৬ আগস্ট ২০২৩, ০৪:১৭ অপরাহ্ণ

ভারত তিস্তা গজলডোবার বাঁধ উন্মুক্ত করায় বাংলাদেশে ভয়াবহ বন্যার আশঙ্কা তৈরি হয়েছে। শুক্রবার (২৫ আগস্ট) সকাল দশটায় ২ লাখের বেশি কিউসেক পানি ছেড়েছে গজলডোবা ব্যারাজ কর্তৃপক্ষ। সব মিলিয়ে শুক্রবার সকাল ছয়টা থেকে বিকেল ৪টার মধ্যে ২ লাখ ১ হাজার ৬৪৭ কিউসেক এবং সর্বনিম্ন ১ লাখ ৬৯ হাজার ৮৪৮ কিউসেক পানি বাংলাদেশের দিকে ছেড়েছে ভারত।

তিস্তার ভারতের সংরক্ষিত এলাকায় হলুদ সর্তকতা জারি করা হলেও দোমহনী থেকে বাংলাদেশ পর্যন্ত সংরক্ষিত এলাকায় লাল সতর্কতা জারি করেছে সেচ দপ্তর। বিগত ২৪ ঘণ্টার বেশি সময় সিকিম দার্জিলিং ও পশ্চিমবঙ্গের উত্তরের জেলাগুলোতে চলছে ভারী বৃষ্টি। তিস্তা সংলগ্ন পশ্চিমবঙ্গের উত্তর জেলা জলপাইগুড়িতে গত ২৪ ঘণ্টায় বৃষ্টি হয়েছে ১৪৩ মিলিমিটার এবং শিলিগুড়িতে বৃষ্টি হয়েছে প্রায় ২২৩ মিলিমিটার।

পশ্চিমবঙ্গের ফ্ল্যাড অথরিটি সেন্টারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে সমতলের তুলনায় পাহাড়ে বৃষ্টির পরিমাণ আরও বেশি। ফলে উত্তরের নদনদী ও পাহাড়ি ঝোরাগুলোতে দেখা দিয়েছে অপ্রত্যাশিত বন্যা। যা ব্যারেজ দিয়ে আটকে রাখা বা সাময়িক সময়ের জন্য ঠেকিয়ে দেওয়া সম্ভব নয়।

অন্যদিকে পাহাড়ে প্রবল বর্ষণের জেরে দার্জিলিং-এর পাঠাবং-এ ভূমিধসে একজনের মৃত্যু হয়েছে। জানা গেছে শুক্রবার সকালে তকবর সমষ্টির অধীনে থাকা পাঠাবংয়ের ডান্ডা গ্রামে একটি বাড়ি ধ্বসের কবলে পড়ে। পুলিশ ও ফায়ার ব্রিগেডের উদ্ধারকারী দল দীর্ঘসময় উদ্ধার কাজ চালিয়ে ওই বাড়ির মালিক বাবুরাম রাইয়ের দেহ উদ্ধার করে।

এদিকে ভারতীয় আবহাওয়া দপ্তরের পূর্বাঞ্চলীয় অধিকর্তা সঞ্জীব বন্দোপাধ্যায় তার নিয়মিত প্রেস ব্রিফিংয়ে জানান, উত্তরবঙ্গের আজ ও আগামীকাল ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। তাই কমলা সতর্কতা জারি থাকছে।







সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ