মঙ্গলবার ২৩ এপ্রিল ২০২৪ ১০ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

এখন বিশ্বাস রাখবেন আমি বোলিংটাও পারি’
প্রকাশ: সোমবার, ১৫ মে ২০২৩, ০১:০২ অপরাহ্ণ

নাজমুল হোসেন শান্ত ওপেনার ব্যাটার হিসেবেই পরিচিত ছিল দেশের ক্রিকেটে। যদিও এরপর তিন কিংবা চার নম্বর পজিশনেও ব্যাট হাতে দেখা গেছে তাকে। টাইগার এই ব্যাটারকে বল হাতে ঘরোয়া ক্রিকেটে দেখা গেলেও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে খুব একটা দেখা যায় না। তবে আইরিশদের বিপক্ষে রোমাঞ্চকর জয়ের দিনে শান্ত বল হাতেও করলেন বাজিমাত।

আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের শেষ ওয়ানডেতে চেমসফোর্ডের উইকেটে শান্ত বল করেন ৩ ওভার। এ সময় ১০ রান দিয়ে ভয়ঙ্কর হয়ে ওঠা আইরিশ ব্যাটার হ্যারি টেক্টরকে ফিরিয়ে নিজের প্রথম আন্তর্জাতিক উইকেট পান।

ম্যাচ শেষে বাঁহাতি এই ব্যাটার বলছিলেন, ‘আমি কেবল আমার কাজটা করে গেছি। রঙ্গনা হেরাথের (স্পিন বোলিং কোচ) সঙ্গে আমি অনেক অনুশীলন করেছি, সেটাই কাজে দিয়েছে। অধিনায়ক (তামিম) আমাকে বল করতে বলেন। বোলিংয়ের সময় মিরাজ অনেক সাহায্য করেছে। আমি তার নির্দেশনা মেনে বল করেছি। আমি মিরাজের অ্যাকশন অনুসরণ করার চেষ্টা করেছি, যদিও পুরোপুরি পারিনি।’

ধারাভাষ্যকার শান্তকে প্রশ্ন ছুঁড়ে দেন, এখন থেকে তাকে অলরাউন্ডার বলা যাবে কি না। জবাবে বলেন, ‘আমি এখনও অলরাউন্ডার হয়ে উঠিনি। তবে তামিম ভাই সম্ভবত এখন বিশ্বাস করবেন যে, আমি বলটাও করতে পারি।’

আরও যোগ করেন, ‘প্রথম সেঞ্চুরিটা ছিল স্পেশাল। আশা করি, ব্যাটিং ফর্মটা ধরে রাখতে পারব। দর্শক দেখতে খুব ভালো লাগছে। আমরা যেখানেই খেলতে যাই, তারা আসেন। তাদের কাছে কৃতজ্ঞ।’

অবশ্য ম্যাচ শেষে এক প্রতিক্রিয়ায় তামিম জানান, ‘৪০ ওভার পর্যন্ত কোনো তাকে বোলিং দেওয়ার কোনো পরিকল্পনা ছিল না। মিরাজ যেভাবে বল করেছে, সেটা শান্তকে বোলিং দিতে বাধ্য হয়েছি। সে বলছিল সে পারবে। কিন্তু আমি তাকে বিশ্বাস করিনি (হাসি)। কিন্তু আমার অধিনায়কত্বেই সে তার প্রথম ওয়ানডে উইকেট পেয়েছে। অফ স্পিনারকে মারা সহজ মনে হচ্ছিল না। সে জন্যই তাকে বল দিয়েছি।’







সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক পঠিত

এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ