কায়েতপাড়ায় জনবান্ধব গাড়ি!

0
213

জাহাঙ্গীর মাহমুদ : স্বল্প মূল্যে তাড়াতাড়ি, খাবার যাবে আপনার বাড়ি এই স্লোগান নিয়ে রংধনু গ্রুপের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব রফিকুল ইসলামের নির্দেশে রমজান মাসজুড়ে খাদ্য সামগ্রীসহ রূপগঞ্জের কায়েতপাড়া ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকায় মানুষের পাশে রয়েছে এক মানবতার গাড়ি। নারায়ণগঞ্জ জেলা পরিষদের ও রংধনু গ্রুপের পরিচালক মিজানুর রহমানের উদ্যোগে বিভিন্ন জনবান্ধব ও মানবিক কার্যক্রমের ধারাবাহিকতায় এবার রমজান মাসজুড়ে ইফতার ও খাবারের সামগ্রী নিয়ে চলছে ‘জনবান্ধব গাড়ি। আর এই মানবতার উদ্যোগ নিয়েছে দেশের অন্যতম শিল্পগোষ্ঠী রংধনু গ্রুপ। রমজান মাসজুড়ে স্বল্প মূল্যে ইফতার ও খাদ্যসামগ্রী সা হতদরিদ্রদের বাড়িতে বাড়িতে অর্ধেকদামে পৌঁছে দিতে চলছে এই গাড়ি।

রবিবার বিকেলে রূপগঞ্জ উপজেলার কায়েতপাড়া ইউনিয়নে কার্যক্রমটির উদ্বোধন করেন রংধনু গ্রুপের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব রফিকুল ইসলাম। এই কার্যক্রম পরিচালনার দায়িত্বে রয়েছেন নারায়ণগঞ্জ জেলা পরিষদের সদস্য ও কায়েতপাড়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে নৌকা প্রতীকের মনোনয়ন প্রত্যাশী রংধনু গ্রুপের পরিচালক মিজানুর রহমান।

প্রথম পর্যায়ে কায়েতপাড়া ইউনিয়নে এ কার্যক্রম শুরু হলেও পর্যায়ক্রমে পুরো উপজেলায় মানবতার গাড়ি চলবে বলে জানান রংধনু গ্রুপের চেয়ারম্যান। রবিবার বিকেলে রূপগঞ্জ উপজেলার কায়েতপাড়া ইউনিয়নের নগরপাড়া এলাকায় যাত্রা শুরু করে এ জনবান্ধব গাড়ি। প্রত্যেক দিন অন্তত ৫০০ দরিদ্র পরিবারে মাঝে পৌঁছে দেয়া হবে ইফতার ও খাদ্যসামগ্রী। ধারাবাহিকভাবে রূপগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় চলবে এই গাড়ি। এ গাড়িতে রয়েছে চাল, ডাল, তেল, চিনি, পেয়াজ, আলুসহ নিত্যপণ্য ও ইফতার সামগ্রী। যা বাজার মূল্যের অনেক কমদামে পাওয়া যাবে এই গাড়ি থেকে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মানবিক ও জনবান্ধব কার্যক্রমের ধারাবাহিকতায় রংধনু গ্রুপের এমন কার্যক্রম বলে জানান চেয়ারম্যান আলহাজ্ব রফিকুল ইসলাম। তিনি বলেন, করোনা ভাইরাসের প্রকোপে লকডাউনের কবলে পরে সাধারন মানুষ কষ্টে রয়েছ। এ কারনে চলতি সপ্তাহে ২০ হাজার পরিবারকে বিনামূল্য খাদ্য সহায়তা দিয়েছে রংধনু ও বসুন্ধরা গ্রুপ। এই ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে বাজার মূল্যের প্রায় অর্ধের দামে চালু করা হলো জনবান্ধব গাড়ি। শুধু করোনাভাইরাস নয়, প্রতিটি দুর্ভোগ-দুর্যোগে রূপগঞ্জবাসীর পাশে ছিল রংধনু গ্রুপ। আগামী দিনেও এই ধারাবাহিকতা ধরে রেখে কাজ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন তিনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here